১৮ জুন ২০১৯, ৪ আষাঢ় ১৪২৬

নিজেকেই চ্যালেঞ্জ করছেন মিরাজ

  • ক্রীড়া প্রতিবেদক, কার্ডিফ থেকে বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2019-05-26 00:22:49 BdST

bdnews24

সম্ভাব্য রান বন্যার বিশ্বকাপে এমনিতেই বোলারদের অপেক্ষায় কঠিন চ্যালেঞ্জ। বোলারদের মধ্যেও সবচেয়ে অসহায় লাগার কথা প্রথাগত অফ স্পিনারদের। ইংল্যান্ডের উইকেটে এখন তাদের জন্য যে থাকে না তেমন কিছুই! তবে সেই চ্যালেঞ্জ সাদরেই গ্রহণ করে নিচ্ছেন মেহেদী হাসান মিরাজ। চ্যালেঞ্জ জয় করে বাংলাদেশের অফ স্পিনিং অলরাউন্ডার পূরণ করতে চান দলের আশা।

ইংল্যান্ডে এখন যে ধরনের ব্যাটিং স্বর্গে ওয়ানডে ম্যাচ হয়, স্পিনারদের বোলিংয়ে বাড়তি কিছু বৈচিত্র না থাকলে টিকে থাকাই কঠিন। রিস্ট স্পিনারদের সহজাত বৈচিত্র আর উইকেট শিকারের প্রবণতা থাকে বলে তারা হতে পারেন কার্যকর। অফ স্পিনারদের মধ্যেও যাদের ক্যারম বল, স্লাইডার বা এ রকম বৈচিত্র থাকে, তাদের নিয়েও বাড়তি ভাবতে হয় ব্যাটসম্যানদের।

কিন্তু মিরাজের মতো যারা প্রথাগত অফ স্পিনার, ফ্লাইট, লুপ, গতি বৈচিত্র আর বুদ্ধিমত্তাই সম্বল, তাদের কাজ অনেক কঠিন। উইকেট ভালো বলেই শুধু নয়, ইংল্যান্ডের বেশিরভাগ মাঠই আকারে ছোট। অনেক সময় টাইমিং না হলেও বল চলে যায় গ্যালারিতে।

কিন্তু বাংলাদেশের নেই তেমন কোনো বৈচিত্রময় স্পিনার, নেই কোনো রিস্ট স্পিনার। সাকিব আল হাসানের পাশাপাশি তাই ভরসা রাখতে হয়েছে মিরাজের অফ স্পিনে। দলের সেই ভরসার প্রতিদান দিতে মিরাজ চ্যালেঞ্জ করছেন নিজেকেই।

“চ্যালেঞ্জ সবসময় থাকে আন্তর্জাতিক পর্যায়ে। আমার নিজেরও চ্যালেঞ্জ নিতে ভালো লাগে। এই কন্ডিশনে কতটা ভালো করতে পারি, নিজের কাছেও এটা আমার চ্যালেঞ্জ। দলও আমার ওপর ভরসা রাখছে। দল যেটা চায়, আমি দেওয়ার চেষ্টা করব। স্পিনে আমাদের যে ঘাটতি আছে, সেটি পূরণ করার চেষ্টা করব।”

চ্যালেঞ্জ জয়ে অবশ্য অলৌকিক কিছু করে ফেলা স্বপ্ন দেখছেন না মিরাজ। তার কাছে দলের যা চাওয়া, পূরণ করতে চান ততটুকুই। প্রথাগত অফ স্পিন দিয়েই গত এক বছরে ওয়ানডেতে কার্যকর বোলিং করে আসছেন মিরাজ। বিশ্বকাপেও ধরে রাখতে চান সেই ধারা।

“আমি সবসময় বলে আসছি, এখানে স্পিনারদের মূল কাজ হবে, উইকেট নেওয়ার চেয়ে রান কম দেওয়া আর আমাদের বোলাদের সাপোর্ট করা। পেসারদের সাপোর্ট করতে হবে। আমি রান আটকাতে পারলে বা এক প্রান্ত থেকে চাপে রাখতে পারলে অন্য প্রান্তে উইকেট বের করা যাবে। আমি প্রথম থেকেই রান বাঁচাতে চাইছি, এটিই লক্ষ্য থাকবে এখানে। ১০ ওভারে যত কম রান দিতে পারি।”


ট্যাগ:  বাংলাদেশ  ক্রিকেট বিশ্বকাপ  মিরাজ