টিআইবি প্রতিবেদন উদ্দেশ্যপ্রণোদিত: ইসি সচিব

  • নীলফামারী প্রতিনিধি, বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2019-01-16 22:05:10 BdST

bdnews24

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন নিয়ে টিআইবির প্রতিবেদনকে উদ্দেশ্যপ্রণোদিত বলে মনে করেন নির্বাচন কমিশন সচিব হেলালুদ্দীন আহমদ।

নির্বাচনের দুই সপ্তাহ পর এমন একটি প্রতিবেদন প্রকাশ সরকার ও নির্বাচন কমিশনকে ‘অপ্রস্তুত’ রাখার জন্য করা হয়েছে বলে তিনি মনে করেন।

গত ৩০ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত একাদশ সংসদ নির্বাচন নিয়ে মঙ্গলবার একটি প্রতিবেদন প্রকাশ করে দুর্নীতির বিরুদ্ধে জনসচেতনতা তৈরিতে প্রচার চালানো সংস্থা টিআইবি।

নির্বাচনে সবার ‘সমান সুযোগ নিশ্চিত না হওয়ায়’ এই ভোট প্রশ্নবিদ্ধ ও বিতর্কিত ছিল বলে তাদের পর্যবেক্ষণ।

বুধবার নীলফামারী জেলা নির্বাচন কার্যালয় পরিদর্শন ও হেল্প ডেস্ক উদ্বোধনের পর সাংবাদিকদের সঙ্গে তিনি এ বিষয়ে কথা বলেন।

টিআইবির প্রতিবেদন এখনও হাতে এসে পৌঁছেনি জানিয়ে হেলালুদ্দীন বলেন, সেটি হাতে আসার পর পর্যালোচনা করে মন্তব্য করা যাবে।

“তবে  ৩০ ডিসেম্বর নির্বাচন অনুষ্ঠিত হওয়ার পর হঠাৎ করে এরকম একটি প্রতিবেদন প্রকাশ করে সরকার ও নির্বাচন কমিশনকে অপ্রস্তুত রাখা, এটা তাদের উদ্দেশ্য প্রণোদিত বলে আমি মনে করি।”

ইসি সচিব আরও বলেন, “সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণ পরিবেশে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন উপহার দিয়েছি। এখন আমরা উপজেলা নির্বাচনের প্রস্তুতি নিচ্ছি।”

আগামী মার্চ মাসে পাঁচ ধাপে সারাদেশে উপজেলা পরিষদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে বলে জানান তিনি।

“ইভিএম ব্যবহার একটি টেকনিক্যালিক বিষয়; সেই দিক বিবেচনা করে দেশের সদর উপজেলাগুলোতে ইভিএম ব্যবহারের পরিকল্পনা গ্রহণ করা হয়েছে। এখানে কোনো ধরনের সমস্যা না হলে ভবিষ্যতে সব উপজেলা ও পৌরসভা নির্বাচনে পুরোপুরি ইভিএম ব্যবহার করা হবে।”

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বিএনপি অংশ নিয়ে ফলাফল প্রত্যাখ্যান করে পুনর্নির্বাচনের দাবির প্রতি দৃষ্টি আকর্ষণ করা হলে তিনি বলেন, “পুনর্নির্বাচনের সুযোগ নেই।”

নীলফামারী জেলা নির্বাচন কার্যালয় পরিদর্শন ও হেল্প ডেস্কের উদ্বোধন শেষে হেলালুদ্দীন জেলা নির্বাচন কার্যালয় চত্বরে একটি হাড়িভাঙ্গা ও আম্র্রপালি আমের চারা রোপন করেন।

এ সময় জেলা প্রশাসক নাজিয়া শিরিন, রংপুর আঞ্চলিক নির্বাচন কর্মকর্তা জি. এম. সাহাতাব উদ্দিন ও জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা ফজলুল করিমসহ অন্যান্য কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

এদিকে, বুধবার বিকালে ঢাকার আগারগাওঁয়ে প্রধান নির্বাচন কমিশনার নূরুল হুদা টিআইবির প্রতিবেদনের বক্তব্যকে ‘অসৌজন্যমূলক’ বলে মন্তব্য করেছেন।

টিআইবির প্রতিবেদনে একাদশ সংসদ নির্বাচন ‘প্রশ্নবিদ্ধ ও বিতর্কিত’ বলা হয়েছে। একইসঙ্গে নির্বাচনে সবার ‘সমান সুযোগ নিশ্চিত না হওয়ায়’ এই ভোট প্রশ্নবিদ্ধ ও বিতর্কিত ছিল বলেও পর্যবেক্ষণ দেয় টিআইবি।

নির্বাচনী প্রশিক্ষণ ইন্সটিটিউটে (ইটিআই) এক অনুষ্ঠান শেষে টিআইবির প্রতিবেদন বিষয়ে দৃষ্টি আকর্ষণ করা হলে সিইসি নূরুল হুদা সাংবাদিকদের বলেন, “এটা অসৌজন্যমূলক বক্তব্য। তাদের এভাবে কথাগুলো বলা ঠিক হয়নি।”


ট্যাগ:  নীলফামারী জেলা  রংপুর বিভাগ