কুড়িগ্রামে নৌকা ডুবে শিশুসহ ৫ জনের মৃত্যু

  • কুড়িগ্রাম প্রতিনিধি, বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2019-07-16 19:30:09 BdST

bdnews24
নিহত রূপামনির বাড়িতে শোকার্ত প্রতিবেশীরা

কুড়িগ্রামের উলিপুর উপজেলায় বন্যার পানিতে নৌকা ডুবে চার শিশুসহ পাঁচজনের মৃত্যু হয়েছে। আহত হয়েছে আরও তিনজন।

মঙ্গলবার দুপুরে হাতিয়া ইউনিয়নের নতুন অনন্তপুর গ্রামে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলো রূপামণি (৮), হাসিবুর (৯), রুনা বেগম (৩২), সুমন (৮) ও রুকুমনি (৭)।

আহতরা হলেন লাভলী বেগম (৪৫), রুমি বেগম (১৬) ও আয়শা সিদ্দিকা (৫)। তাদের উলিপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে।

নৌকায় থাকা প্রত্যক্ষদর্শী রোকেয়া বেগম, রুবেল, লাভলী বেগম, এনামুল ফকির জানান, দুপুর আড়াইটার দিকে তারাসহ ২০/২৫ জন নারী-পুরুষ ও শিশুসহ নৌকা নিয়ে বন্যার পানিতে ডুবে যাওয়া স্বজনদের বাড়ি দেখতে যাচ্ছিলেন।

ওই বাড়ির কাছাকাছি গেলে পানির তীব্র স্রোতে নৌকাটি তলিয়ে যায় বলে তারা জানান।

হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আহত রুমি বেগম

হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আহত রুমি বেগম

স্থানীয়দের বরাত দিয়ে কুড়িগ্রাম ফায়ার সাভির্সের উপ-সহকারী পরিচালক মঞ্জিল হক বলেন, ডুবন্ত নৌকায় থাকা শিশু ও মহিলাসহ লোকজন বাঁচার জন্য আর্তচিৎকার শুরু করেন। এ সময় অপর একটি নৌকা গিয়ে তাদের উদ্ধারে সহায়তা করে।

এ সময় ডুবন্ত নৌকায় থাকা অনেকে সাঁতরে পার্শ্ববর্তী উঁচু স্থানে উঠে আসেন বলে জানান মঞ্জিল হক।

তিনি বলেন, রূপামণি, হাসিবুর ও রুনা বেগমকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নেওয়ার পথে মারা যান। এ সময় সুমন ও রুকুমনি নিখোঁজ থাকেন। সন্ধ্যা ৬টার দিকে ফায়ার সার্ভিসের ডুবুরি দল সুমন ও রুকুমনির লাশ উদ্ধার করে।

উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ফখরুল আলম বলেন, আহতদের চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। তাদের অবস্থা এখন আগের চেয়ে অনেক ভালো।


ট্যাগ:  রংপুর বিভাগ  কুড়িগ্রাম জেলা