ঝালকাঠিতে ধর্ষণের দায়ে যুবকের যাবজ্জীবন

  • ঝালকাঠি প্রতিনিধি, বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2020-02-18 15:43:22 BdST

bdnews24

ঝালকাঠিতে আট বছর আগের একটি ধর্ষণ মামলায় এক যুবককে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছে আদালত। সেই সঙ্গে তাকে ২০ হাজার টাকা অর্থদণ্ডও দেওয়া হয়েছে।

মঙ্গলবার ঝালকাঠি নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল আদালত-২ এর বিচারক শেখ মো. তোফায়েল হাসান আসামির উপস্থিতিতে এ রায় ঘোষণা করেন।

দণ্ডিত মো. সোহেল ঘরামী (২৭) নলছিটি উপজেলার রানাপাশা ইউনিয়নের তেতুলবাড়িয়া গ্রামের মো. আইউব আলীর ছেলে।

যাবজ্জীবনের পাশাপাশি বিচারক তাকে ২০ হাজার টাকা অর্থদণ্ডও দিয়েছেন। অনাদায়ে তাকে আরও তিন মাসের সাজা ভোগ করতে হবে বলে রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী  মোস্তাফিজুর রহমান জানান।

মামলার বিবরণে বলা হয়, সোহেল তার গ্রামের ১৫ বছরের এক কিশোরীকে বিয়ের কথা বলে প্রেম ও শারীরিক সম্পর্ক করে। এক পর্যায়ে মেয়েটি অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়ে। মেয়েটির বাড়ির লোকজন ও এলাকাবাসী সোহেলকে বিয়ের জন্য চাপ দিলে সে তাতে অসম্মতি জানায়।

পরে মেয়েটির বাবা ২০১২ সালের ৩ মার্চ সোহেল ও তার মাসহ পাঁচজনকে আসামি করে ধর্ষণের অভিযোগে আদালতে একটি মামলা দায়ের করেন।

আদালত বাকিদের অব্যহতি দিয়ে সোহেলের বিরুদ্ধে ২০১৩ সালের ২১ নভম্বর অভিযোগ গঠন করে।

রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী মোস্তাফিজুর বলেন, ধর্ষণের শিকার ওই মেয়েটির একটি কন্যা সন্তান জন্ম নেয়। বর্তমানে পাঁচ বছরের ওই কন্যাকে নিয়ে মা-বাবার সংসারে অসহায় অবস্থায় আছে ওই কিশোরী।

তাই আদালত শিশুটির দায়িত্ব নিতে ঝালকাঠি জেলা প্রশাসককে নির্দেশ দিয়েছেন বলে জানান এ আইনজীবী।


ট্যাগ:  ঝালকাঠি সদর উপজেলা  ঝালকাঠি জেলা  বরিশাল বিভাগ