বগুড়ায় ওরশে বাধা, হামলায় দুই পুলিশ আহত

  • বগুড়া  প্রতিনিধি, বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2020-03-26 00:54:28 BdST

bdnews24

নভেল করোনাভাইরাস সংক্রমণ ঠেকাতে সারা দেশে সমাবেশের উপর নিষেধাজ্ঞার মধ্যে বগুড়ায় এক ওরশ মাহফিলে বাধা দেওয়ার কারণে পুলিশের উপর হামলায় দুইজন আহত হয়েছে।.

বুধবার রাতে ভাষা সৈনিক গাজিউল হকের বাসভবন চত্বরে ওই মাহফিলের ‘লোকজনের মারধরে’ আহত দুই পুলিশ কর্মকর্তাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

এ ঘটনায় জড়িত অভিযোগে সাবেক পৌর কমিশনার নূরুল আমিন নূরুসহ ২২ জনকে আটক করেছে পুলিশ।

আহত বগুড়া সদর থানার উপশহর পুলিশফাঁড়ি ইনচার্জ ইন্সপেক্টর নান্নু খান ও এসআই জাহিদকে বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ (শজিমেক) হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

বগুড়া সদর সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সনাতন চক্রবর্তী জানান, ভাষা সৈনিক  গাজিউল হকের বাবা মরহুম সিরাজুল হক চিশতীর অনুসারীরা প্রতি বছরের মত এবারো ২৫ মার্চ রাতে বগুড়া শহরের সুলতানগঞ্জ পাড়া গোয়ালগাড়ীস্থ বাসভবন চত্বরে বার্ষিক ওরশ মাহফিলের আয়োজন করেন।

“তবে করোনাভাইরাস সতর্ককতার কারণে পুলিশ ওরশ আয়োজনে নিষেধ করে। কিন্তু মরহুম গাজিউল হকের ছেলে ওরশ আয়োজক রুহুল গাজী তা অমান্য করেন।

“এক পর্যায়ে বুধবার রাত ১০টার দিকে পুলিশ ইন্পক্টের নান্নু খানের নেতৃত্বে একদল পুলিশ সেখানে গিয়ে বাধা দিলে ওরশে অংশগ্রহণকারীরা পুলিশের উপর হামলা করে।”

তারা নান্নু খান ও জাহিদকে মারপিট করে একটি রুমে আটকে রাখে।পরে অতিরিক্ত পুলিশ গিয়ে তাদেরকে উদ্ধার করে নান্নু ও জাহিদকে আহত অবস্থায় শজিমেক হাসপাতালে ভর্তি করে বলে জানান তিনি।

এ সময় সেখান থেকে পুলিশ পৌর সভার ১নং ওয়ার্ডের সাবেক কমিশনার নূরুল আমিন নুরুসহ ২২ জনকে আটক করে থানায় নিয়ে আসে। তাদের বিরুদ্ধে সরকারি কাজে বাধা ও মারধরের অভিযোগে মামলা করার প্রস্তুতি চলছে বলেন পুলিশ কর্মকর্তা।


ট্যাগ:  রাজশাহী বিভাগ  বগুড়া জেলা