ফেইসবুকে ‘অবমাননায়’ পীরগঞ্জে তাণ্ডব: সেই তরুণের স্বীকারোক্তি

  • রংপুর প্রতিনিধি, বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2021-10-19 23:09:37 BdST

bdnews24
আগুনে পুড়ছে ঘর। ছবি: ভিডিও থেকে নেওয়া।

যার ফেইসবুকে ধর্মীয় অবমাননার কথিত অভিযোগে রংপুরে হিন্দু বাড়িঘর পুড়িয়ে দেওয়া হয়েছে সেই তরুণ স্বীকারোক্তি দিয়েছেন আদালতে।

মঙ্গলবার বিকালে রংপুরের পীরগঞ্জ আমলি আদালতের জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিম ফজলে এলাহী এ আদেশ দেন বলে আদালত পুলিশের পরিদর্শক গোলাম মোস্তফা জানান।

এরপর এই তরুণকে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। এই ঘটনায় দায়ের করা পৃথক মামলায় তাকেসহ ৩৯ আসামিকে কারাগারে পাঠানো হলো।
পরিদর্শক গোলাম মোস্তফা জানান, দুপুরে কড়া নিরাপত্তার মধ্যে দুই মামলার ৪১ আসামিকে পুলিশ আদালতে হাজির করে। এরপর বিকালে ফেইসবুকে ধর্ম অবমাননার অভিযোগে আটক তরুণকে হাজির করে পুলিশ।

“পীরগঞ্জ জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিম ফজলে এলাহীর আদালতে ফৌজদারি কার্যবিধির ১৬৪ ধারায় ওই তরুণের জবানবন্দি রেকর্ড করা হয়। পরে তাকে রংপুর কেন্দ্রীয় কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেয় আদালত।”
ফেইসবুকে ধর্ম অবমাননার কথিত অভিযোগ তুলে গত রোববার রাতে পীরগঞ্জে রামনাথপুর ইউনিয়নে হিন্দু সম্প্রদায়ের অন্তত ২৩টি বাড়িঘরে হামলা, ভাঙচুর ও অগ্নিসংযোগ করে একদল লোক।

এই ঘটনায় পীরগঞ্জ থানায় পুলিশের পক্ষ থেকে দুইটি মামলা হয়েছে। ফেইসবুকে পোস্ট দেওয়া সেই তরুণসহ এই ঘটনায় জড়িত সন্দেহে পুলিশ ৪২ জনকে গ্রেপ্তার করেছে।

মামলার বাদী পীরগঞ্জ থানার এসআই ইসমাইল হোসেন জানান, আটক ৪২ জনের মধ্যে তিন জন অপ্রাপ্ত বয়স্ক। শুনানি শেষে আদালত এই তিন শিশুকে বাদ দিয়ে বাকিদের কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেয়।

এসআই ইসমাইল জানান, হিন্দুপল্লিতে হামলার ওই ঘটনায় দুটি মামলা রেকর্ড করা হয়েছে। এর মধ্যে বাড়িঘরে হামলা, ভাঙচুর, অগ্নিসংযোগ ও লুটপাটর ঘটনায় করা মামলাটি পরিদর্শক (তদন্ত) মাহবুব রহমান এবং তথ্যপ্রযুক্তি আইনের মামলা এসআই সাদ্দাম হোসেন তদন্ত করছেন।