নেত্রকোণায় ‘চিরকুট লিখে আত্মহত্যা’ তরুণী গৃহবধূর

  • নেত্রকোণা প্রতিনিধি, বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
    Published: 2021-11-30 14:25:37 BdST

bdnews24
প্রতীকী ছবি

নেত্রকোণার দুর্গাপুর পৌরসভায় চিরকুটসহ এক তরুণী গৃহবধূর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

দুর্গাপুর থানার ওসি শাহ নূর-এ আলম জানান, মঙ্গরবার সকালে হাওয়া বেগম (১৮) নামে এই তরুণীর লাশ ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠান তারা।

হাওয়া ওই পৌরসভার ভাঙ্গাব্রিজ এলাকার হাসান মিয়ার স্ত্রী এবং দুর্গাপুর উপজেলার চণ্ডীগড় ইউনিয়নের সাতাশি গ্রামের ফজলুল করিমের মেয়ে।

ওসি আলম স্থানীয়দের বরাতে বলেন, মাস তিনেক আগে হাওয়া ও হাসানের বিয়ে হয়। প্রতিদিনের মত সোমবার সকালে ইটভাটায় কাজ করতে যান হাসান। সন্ধ্যার দিকে হাওয়ার শ্বশুরও বাড়ি থেকে বের হয়ে যান। তখন বাড়িতে হাওয়া ছাড়া আর কেউ ছিল না। সে সময় প্রতিবেশী এক নারী যান ওই বাড়িতে। তিনি হাওয়াকে ঘরের আড়ার সঙ্গে ঝুলতে দেখেন। তার চিৎকার শুনে স্থানীয়রা এগিয়ে যায়। খবর পেয়ে পুলিশ গিয়ে লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে। প্রাথমিক তদন্ত শেষে মঙ্গলবার সকালে মর্গে পাঠানো হয়।

ওসি বলেন, ঝুলন্ত লাশের নিচে ঘরের মেঝেতে একটি চিরকুট পেয়েছে পুলিশ। চিরকুটে লেখা আছে, ‘আমি নিজের ইচ্ছে মরেছি। এতে আমার স্বামীর কোনো অন্যায় নেই। আমি মরলে যেন আমার স্বামী আরেকটা বিয়ে করে। আমার সব জিনিসপত্র দিয়ে দেয় যেন আমার মা-বাবার কাছে। সবার প্রতি আমার সালাম। আসসালামু আলাইকুম। আমাকে মাফ করে দিও সবাই।‘

“ধারণা করা হচ্ছে চিরকুট লিখে আত্মহত্যা করেছেন হাওয়া।”

ময়নাতদন্ত প্রতিবেদন পাওয়ার পর পুলিশ পরবর্তী পদক্ষেপ নেবে বলে জানান ওসি আলম।