‘প্রথম লক্ষ্য কোয়ালিফাই করা, এরপর সেমি-ফাইনালের চিন্তা’

বিশ্বকাপ শুরুর আগে স্বপ্নের সীমানায় ছিল সেমি-ফাইনাল। অনেক অনেক ম্যাচ জয়। কিন্তু স্বপ্ন পূরণের অভিযানের শুরুতেই হোঁচট খেয়ে প্রথম রাউন্ড উতরানো নিয়েই টানাটানি। তবে বাস্তবতার থাবায় স্বপ্নের পরিধি কমে আসছে না বাংলাদেশ দলের। সাকিব আল হাসান বললেন, প্রথম রাউন্ডের বাধা পেরিয়ে তারা সেমি-ফাইনাল নিয়ে ভাববেন।

স্কটল্যান্ডের কাছে হার দিয়ে এবারের বিশ্বকাপ শুরু করে বাংলাদেশ। দ্বিতীয় ম্যাচে ওমানের সঙ্গে ২৬ রানে জিতলেও বেগ পেতে হয় যথেষ্টই। আইসিসি টি-টোয়েন্টি র‌্যাঙ্কিংয়ে ১৮ নম্বরে থাকা ওমান বেশ কঠিন পরীক্ষা নেয় ৬ নম্বরে থাকা বাংলাদেশের।

ওমানের বিপক্ষে ম্যাচের পর সাকিবের সংবাদ সম্মেলনে প্রশ্ন হলো, প্রথম দুই ম্যাচের অভিজ্ঞতার পর দলের বিশ্বকাপ স্বপ্ন ছোট হয়ে আসছে কিনা। ম্যান অব দা ম্যাচ হওয়া অলরাউন্ডারের উত্তরে মিশে থাকল প্রশ্ন নিয়ে অসন্তুষ্টি।

“আমাদের স্বপ্ন আমরা বলেই এসেছি। স্বপ্ন কি প্রতিদিন বদলায় নাকি? নতুন নতুন করে স্বপ্ন…প্রথম কাজ হচ্ছে আমাদের কোয়ালিফাই করা, এরপর সেমি-ফাইনালের চিন্তা। দেশ থেকে যখন আসি, তখন তো বড় স্বপ্ন নিয়েই আসতে হবে। যদি বলেই আসি যে সব ম্যাচ হারতে আসছি, তাহলে আপনারা খুশি হয়ে নেবেন?”

২০০৭ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের পর কোনো আসরেই মূল পর্বে কোনো ম্যাচ জেতেনি বাংলাদেশ। এবার দলের লক্ষ্য ছিল বেশ কিছু জয়। অথচ ওমানের কাছে হেরে গেলে দু্ই ম্যাচেই শেষ হয়ে যেতে পারত বাংলাদেশের বিশ্বকাপ।

মূল পর্বে জয়ের আশা এখনও আছে দলের। তবে বাস্তবতার পথ ধরে এগিয়ে সেই স্বপ্ন পূরণের কথা বললেন তিনি।

“প্রথম লক্ষ্য তো অবশ্যই কোয়ালিফাই করা। সেটা করতে পারলে আমাদের সামনে সুযোগ আসবে অনেকগুলো ম্যাচ খেলার। প্রথমে তো ম্যাচ খেলতে হবে। যখন আমরা কোয়ালিফাই করব, তখন আরও ৫টা ম্যাচ খেলব।”

“মূল পর্বে কোনোবারই কোনো ম্যাচ জিততে পারি নাই হয়তো। সেদিক থেকে আমাদের এবার একটা সুযোগ থাকবে। তবে এজন্য প্রথমে আমাদের কোয়ালিফাই করতে হবে।”