অপেক্ষায় থাকতে হচ্ছে ইউনাইটেডের নতুন কোচকে

বেশ কিছুদিন ধরেই শোনা যাচ্ছিল জোর গুঞ্জন। এবার আনুষ্ঠানিক ঘোষণাও এলো। ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের কোচ হিসেবে নিয়োগ পেলেন রালফ রাংনিক। তবে এখনও ‘ওয়ার্ক পারমিট’ না পাওয়ায় দায়িত্ব শুরু করতে পারছেন না এই জার্মান।

নিজেদের ওয়েবসাইটে সোমবার এক বিবৃতিতে রাংনিককে নিয়োগ দেওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করেছে প্রিমিয়ার লিগের ক্লাবটি।

২০২১-২২ মৌসুমের বাকি অংশে কোচের দায়িত্ব পালনের পর দুই বছর ক্লাবটির পরামর্শক হিসেবে কাজ করবেন ৬৩ বছর বয়সী রাংনিক।

দলের টানা ব্যর্থতার দায়ে গত ২১ নভেম্বর ইউনাইটেডের কোচের চাকরি হারান উলে গুনার সুলশার। সেই জায়গায় আপাতত দায়িত্ব পালন করছেন ম্যাইকেল ক্যারিক। অন্তর্বর্তীকালীন কোচ হিসেবে তার স্থলাভিষিক্ত হলেন রাংনিক।

ইউনাইটেডের দেওয়া বিবৃতিতে রাংনিক বলেন, মৌসুমের বাকি অংশে অভিজ্ঞতা ও তারুণ্যের সমন্বয়ে গড়া দলটিকে কাঙ্ক্ষিত ফলাফল অর্জনে সাহায্য করাটাই তার মূল লক্ষ্য।

“আমি ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডে যোগ দিতে পেরে রোমাঞ্চিত এবং ক্লাবের জন্য মৌসুমটি সফল করে তোলাই আমার লক্ষ্য।”

“স্কোয়াডটি প্রতিভায় পরিপূর্ণ। দলটিতে তারুণ্য ও অভিজ্ঞতার দারুণ ভারসাম্য রয়েছে। আগামী ছয় মাসের জন্য আমার সব চেষ্টা থাকবে ব্যক্তিগত ও সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ দলগতভাবে এই খেলোয়াড়দের সেরাটা বের করে আনা।”

রাংনিকের কোচিং ক্যারিয়ারের অন্যতম বড় অর্জন ২০১১ সালে শালকের হয়ে জেতা জার্মান কাপ শিরোপা। ওই ২০১০-১১ মৌসুমেই দলটিকে তুলেছিলেন চ্যাম্পিয়ন্স লিগের সেমি-ফাইনালে।

তার কোচিংয়েই ২০১৯ জার্মান কাপের ফাইনালে উঠেছিল জার্মান ফুটবলে নতুন সম্ভাবনাময় দল লাইপজিগ।

রাংনিক ‘ওয়ার্ক পারমিট’ না পাওয়া পর্যন্ত ক্যারিক দায়িত্ব চালিয়ে যাবেন।

চলতি প্রিমিয়ার লিগে ১৩ ম্যাচে ১৮ পয়েন্ট নিয়ে ইউনাইটেড আছে আট নম্বরে। চ্যাম্পিয়ন্স লিগে এরই মধ্যে নকআউট পর্ব নিশ্চিত করেছে দলটি।