রিয়ালের বিপক্ষে সেই হার এখনও পোড়ায় মেসিকে

রিয়াল মাদ্রিদের বিপক্ষে সেই ম্যাচে লিওনেল মেসির চোখে-মুখে হতাশার ছাপ
দল পুনরুদ্ধার করেছে লিগ ওয়ানের শ্রেষ্ঠত্ব। নতুন ক্লাবে প্রথম মৌসুমেই পেয়েছেন লিগ শিরোপা জয়ের স্বাদ। তবে চ্যাম্পিয়ন্স লিগে রিয়াল মাদ্রিদের বিপক্ষে অনেকটা সময় আধিপত্য করেও হেরে যাওয়ার কষ্টটা ভুলতে পারছেন না পিএসজি তারকা লিওনেল মেসি।

ইউরোপ সেরার প্রতিযোগিতাটির শেষ ষোলোয় দুই লেগের লড়াইয়ে ১৫০ মিনিট এগিয়ে থেকেও শেষ ৩০ মিনিটে পথ হারিয়ে ফেলে পিএসজি। মেসির বিশ্বাস, ফিরতি লেগে হেরে গেলেও সেই ম্যাচে মাঠে তারাই শ্রেয়তর ছিলেন।

লিগ ওয়ানে গত শনিবার মেসের বিপক্ষে ৫-০ গোলের জয় দিয়ে মৌসুম শেষ করেছে পিএসজি। আগেই লিগ চ্যাম্পিয়ন হয়ে যাওয়া প্যারিসের ক্লাবটির চলতি মৌসুমে একমাত্র শিরোপা এটিই।

ঘরোয়া আরেক টুর্নামেন্ট ফরাসি কাপে ব্যর্থতার পাশাপাশি ফরাসি সুপার কাপও জিততে পারেনি পিএসজি। তবে এই মৌসুমে তাদের সবচেয়ে বড় হতাশা নিশ্চিতভাবেই চ্যাম্পিয়ন্স লিগ থেকে আগেভাগে বিদায়।

অধরা এই শিরোপা জয়ের স্বপ্নেই রীতিমতো ক্লাবে তারার হাট বসিয়েছে পিএসজি। নেইমার, কিলিয়ান এমবাপে আছেন আগে থেকে। গত গ্রীষ্মের দলবদলে তারা দলে টানে মেসি, সের্হিও রামোস, জানলুইজি দোন্নারুম্মাসহ আরও কয়েকজনকে।

তারপরও এবার কাজের কাজ কিছুই করতে পারেনি তারা। ইউরোপ সেরার মঞ্চে শেষ ষোলোয় প্রথম লেগে ১-০ গোলে এগিয়ে ছিল পিএসজি। ফিরতি লেগের বিরতির সময় লড়াইয়ে ২-০ গোলের অগ্রগামিতায় তারা ছিল শেষ আটের পথে।

সেখান থেকে দুর্দান্ত এক হ্যাটট্রিকে মেসিদের আশা গুঁড়িয়ে দেন করিম বেনজেমা। পরে দলটি জায়গা করে নিয়েছে ফাইনালে, যেখানে তাদের প্রতিপক্ষ লিভারপুল।

লিগ জিতলেও রিয়ালকে বাগে পেয়ে হারাতে না পারার হতাশা ভুলতে পারছেন না মেসি। সাবেক বার্সেলোনা ফরোয়ার্ড শনিবার ইনস্টাগ্রাম পোস্টে লিখেছেন সেই যন্ত্রণার কথা।

“এই বছরে যা কিছু ঘটেছে, সেজন্য মৌসুমটি বেশ আলাদা। কিন্তু শেষ পর্যন্ত আমরা লিগ শিরোপা জিতেছি এবং এখানে প্রথম ট্রফি জিততে পেরে আমি খুব খুশি।” 

“চ্যাম্পিয়ন্স লিগ থেকে ছিটকে পড়া এখনও আমাদের জন্য তিক্ত অভিজ্ঞতা হয়ে আছে। ওই লড়াইয়ে আমরাই শ্রেয়তর দল ছিলাম। তবে একই সঙ্গে আমি (ক্যারিয়ারে) আরেকটি শিরোপা যোগ করার আনন্দের কথা মনে রাখতে চাই, যেটা আমাদের লক্ষ্যগুলোর একটি ছিল।”

গত অগাস্টে বার্সেলোনা সঙ্গে ২২ বছরের সম্পর্ক ছিন্ন করে পিএসজিতে যোগ দিয়েছিলেন মেসি। নতুন পরিবেশে মানিয়ে নিতে সাহায্যের জন্য সতীর্থদের ধন্যবাদ জানানোর পাশাপাশি পরবর্তী মৌসুমে দারুণ কিছুর আশাবাদ ব্যক্ত করেছেন ৩৪ বছর বয়সী এই ফুটবলার।

“মৌসুম শেষ হয়ে গেছে, এখানে আসার পর থেকে সতীর্থরা যেভাবে আমাকে ও আমার পরিবারকে সমর্থন দিয়েছে এবং আমাকে দেখভাল করেছে ও পাশে থেকেছে, তার জন্য তাদের ধন্যবাদ জানাতে চাই।”

"আমি নিশ্চিত যে ২০২২ সালে (২০২২-২৩ মৌসুমে) ভালো কিছু হতে যাচ্ছে। এটি একটি গুরুত্বপূর্ণ বছর হবে এবং আমরা সব শিরোপার জন্য লড়াই করব।”