কোভিড-১৯: ইতালিতে বড়দিনের মৌসুমে ভ্রমণে নিষেধাজ্ঞা

ফাইল ছবি: রয়টার্স
কোভিড-১৯ সংক্রমণের বিস্তার রোধে কড়াকাড়ি আরোপের অংশ হিসেবে ইতালি সরকার আগামী ২১ ডিসেম্বর থেকে ৬ জানুয়ারি পর্যন্ত এক রাজ্য থেকে অন্য রাজ্যে ভ্রমণের উপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করতে যাচ্ছে।

একইসঙ্গে স্থানীয় সময় রাত ১০ থেকে ভোট ৫টা পর্যন্ত কারফিউ জারি করা হবে।

কিছু কিছু ‍অঞ্চলে সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত রেস্তোরাঁ খোলা রাখার অনুমতি দেওয়া হলেও ভেতরে বসে খাওয়া যাবে না। শুধু খাবার নিয়ে যাওয়া যাবে। আগামী ৭ জানুয়ারি পর্যন্ত দেশজুড়ে স্কি খেলাও অবশ্যই বন্ধ রাখার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

শীতে পুরো ইউরোপ জুড়েই করোনাভাইরাসের সংক্রমণ তীব্র আকার ধারণ করেছে। এদিকে সমনেই উৎসবের মৌসুম। লম্বা ছুটি থাকায় বড়দিনের উৎসব ও নতুন বছরকে স্বাগত জানাতে ইউরোপের বাসিন্দারা এ সময় অনুষ্ঠান আয়োজনে মেতে উঠেন, বের হন ভ্রমণে। কোভিড-১৯ মহামারীর কারণে এ বছর তেমনটা হচ্ছে না।

ইউরোপে কোভিড-১৯ এর ‘দ্বিতীয় ঢেউয়ের’ পর এবার সামনে ‘তৃতীয় ঢেউ’ আসছে বলে সতর্ক করা হচ্ছে।

বৃহস্পতিবার ইতালিতে দৈনিক মৃত্যুর নতুন রেকর্ড হয়েছে। এদিন এ রোগে আক্রান্ত হয়ে ৯৯৩ জনের মৃত্যু হয়। যদিও সেখানে সংক্রমণের গতি কিছুটা হ্রাস পেয়েছে।

এরআগে গত ২৭ মার্চ এক দিনে সর্বোচ্চ ৯৬৯ জনের মৃত্যু দেখেছিল ইতালি।

ইতালির প্রধানমন্ত্রী জোসেফ কোন্তে বলেন, ‘‘ভাইরাসের বিরুদ্ধে আমরা আমাদের প্রতিরোধ ব্যবস্থা দুর্বল করে ফেলতে পারি না।

‘‘আগামী জানুয়ারিতে সংক্রমণের তৃতীয় ঢেউ আসতে পারে, যেটা প্রথম বা দ্বিতীয় ঢেউয়ের চেয়ে কোনো অংশ কম প্রাণঘাতী হবে না। আমাদেরকে ঝুঁকি হ্রাস করতে অবশ্যই এজন্য প্রস্তুত হতে হবে।”

নতুন ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞার কারণে লোকজনকে ক্রিসমাস ডে, বক্সিং ডে এবং নিউ ইয়ার ডে তে নিজ শহরেই অবস্থান করতে হবে। তবে এ সময় কাজের জন্য, চিকিৎসা প্রয়োজনে এবং জরুরি প্রয়োজনে ভ্রমণ করা যাবে।

ইতালিতে কোভিড-১৯ এখন পর্যন্ত ৫৮ হাজারের বেশি মানুষের প্রাণ কেড়ে নিয়েছে।