বড়ভাইয়ের আগে বিয়েতে পরিবারের অসম্মতি, ছোটভাইয়ের `আত্মহত্যা’

ভোলায় এক তরুণের ‘আত্মহত্যার’ খবর পাওয়া গেছে, বড়ভাইয়ের বিয়ে না হওয়ায় যার বিয়েতে সম্মতি দেয়নি পরিবার।

বৃহস্পতিবার সকালে চরফ্যাশন উপজেলার রসুলপুর ইউনিয়নের উত্তর আইচা গ্রামের বাড়ি থেকে তার মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ।

বুধবার রাতে বাড়িতে মো. রিয়াজ (১৮) নামের এই তরুণ পোকা মারার বিষ খান বলে পরিবার ও পুলিশ জানিয়েছে। রিয়াজ ওই গ্রামের মিলন ভুলাইয়ের ছেলে।

শশীভূষণ থানার ওসি রফিকুল ইসলাম বলেন, “প্রেমিকাকে বিয়ে করতে পরিবারের সম্মতি না পেয়ে ওই তরুণ বিষ খেয়ে আত্মহত্যা করেছেন বলে ধারণা করা হচ্ছে।”

নিহতের স্বজনদের বরাত দিয়ে ওসি জানান, রিয়াজ কয়েক মাস ধরে অপরিচিত এক মেয়ের সঙ্গে মোবাইল ফোনে কথা বলছিলেন। এভাবে ফোনে ওই মেয়ের সঙ্গে তার প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে।

“রিয়াজ ওই মেয়েকে বিয়ে করবেন বলে পরিবারের সদস্যদের জানান বুধবার। কিন্তু তার বড়ভাই অবিবাহিত থাকায় পরিবার থেকে বিয়েতে সম্মতি পাননি তিনি।”

ওসি বলেন, রাতে খাবার খেয়ে পরিবারের সদস্যরা ঘুমিয়ে পড়লে রিয়াজ ‘চালের পোকা মারার বিষের বড়ি খান’। বিষয়টি টের পেয়ে পরিবারের সদস্যরা তাকে চরফ্যাশন উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিচ্ছিলেন; পথে তার মৃত্যু হয়।

তার মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য ভোলা সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।