নিখোঁজ নারী ইউপি সদস্যের লাশ মিলল ৫ দিন পর

বগুড়ার ধুনট উপজেলার নিখোঁজ এক নারী ইউনিয়ন পরিষদ সদস্যের মৃতদেহ পাওয়া গেছে পাঁচ দিন পর।

বুধবার বিকালে ধুনট উপজেলার মথুরাপুর ইউনিয়নের কুড়িগাঁতী গ্রামে একটি ধানক্ষেত থেকে তার লাশ উদ্ধার করা হয়। 

মৃত রেশমা খাতুন (৩৮) মথুরাপুর ইউনিয়ন পরিষদের ৭, ৮ ও ৯ নম্বর ওয়ার্ডের সংরক্ষিত মহিলা সদস্য। 

রেশমার স্বামী ফরিদুল ইসলাম জানান, পাঁচ দিন আগে শেরপুর উপজেলায় চিকিৎসার জন্য যাওয়ার কথা বলে বাড়ি থেকে বের হন তার স্ত্রী। তারপর থেকেই তিনি নিখোঁজ ছিলেন।

মথুরাপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হারুন অর রশিদ সেলিম জানান, বুধবার বিকালে কুড়িগাঁতী এলাকার স্থানীয় লোকজন জমিতে ঘাস কাটতে গিয়ে এই নারীর লাশ দেখেন। পরে বিষয়টি থানা পুলিশকে অবহিত করা হয়। 

ধুনট থানার ওসি কৃপাসিন্ধু বালা বলেন, মৃতদেহের সুরত হাল রিপোর্ট তৈরি করা হয়েছে। স্থানীয় লোকজন ও নিহতের স্বামী লাশ শনাক্ত করেছেন। কয়েকদিন আগে তাকে হত্যা করা হয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

লাশ ময়নাতদন্তের জন্য বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।